চুয়াডাঙ্গায় প্রবাসীর স্ত্রীর গায়ে জ্বলন্ত ম্যাচের কাঠি ছুড়ে মারায় দু’বখাটে গ্রেফতার

0
92

স্টাফ রিপোর্টার: প্রবাসীর স্ত্রীর গায়ে ম্যাচের জ্বলন্ত কাঠি ছুড়ে মারায় অভিযুক্ত দু’বখাটেকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গতরাত সাড়ে ১০টার দিকে চুয়াডাঙ্গা জেলা শহরের ইসলামপাড়া থেকে অরুপ (২৬) ও রিপনকে (২৫) গ্রেফতার করা হয়।
গতকাল শনিবার সন্ধ্যায় তালতলায় নিজেদের বাড়ির দরজায় দাঁড়িয়ে হাতি দেখার সময় প্রবাসীর স্ত্রীর গায়ে ম্যাচ জ্বেলে জলন্ত কাঠি ছুড়ে মারে ভ্যান আরোহী। এতে প্রবাসীর স্ত্রীর গায়ে থাকা উড়না ও সালোয়ারে আগুন ধরে হাতের কিছু অংশ দগ্ধ হয়। প্রবাসীর স্ত্রী চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে সদর থানায় দুজনের নাম উল্লেখ করে এজাহার করেন। পুলিশ অভিযোগ গ্রহণের সাথে সাথে অভিযান চালিয়ে দুজনকে গ্রেফতার করে।
গ্রেফতারকৃত দুজন হলো চুয়াডাঙ্গা ইসলামপাড়ার মো. দোলনের ছেলে অরুপ হোসেন ও সানোয়ার হোসেনের ছেলে রিপন। এদের গ্রেফতার অভিযানে নেতৃত্ব দেন চুয়াডাঙ্গা শহর পুলিশ ফাঁড়ির এসআই ওহিদুল ইসলাম বিপিএম। তিনি সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে এজাহারভুক্ত দুজনকে গ্রেফতার করে সদর থানায় নিয়ে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করেন। এ সময় রিপন নিজেকে ভ্যান চালক বলে দাবি করলেও অরুপ তেমন কোনো অজুহাত খাড়া করতে পারেনি। পুলিশসূত্র এরকমই তথ্য দিয়ে বলেছে, তালতলার মালয়েশিয়া প্রবাসীর স্ত্রীকে এর আগেও উত্যক্ত করেছে ওই অরুপ। গতকাল এরা ভ্যানযোগে তালতলায় গিয়ে বাড়ির দরজার সামনে প্রবাসীর স্ত্রীকে দেখে ম্যাচ ঠুকে কাঠি ছুড়ে মারে। এতে দগ্ধ হয়েছেন প্রবাসীর স্ত্রী।
সদর থানার অফিসার ইনচার্জ ইন্সপেক্টর আবু জিহাদ ফকরুল আলম খান বলেন, ইভটিজিং রোধে আমরা যখন সর্বাত্মক চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি তখন দু’বখাটে প্রবাসীর স্ত্রীর গায়ে ম্যাচের কাঠি ছুড়ে মারার মতো গুরুতর অপরাধ করেছে। অভিযোগ পাওয়ার সাথে সাথে এজাহারভুক্ত দুজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। আজ রোববার আদালতে সোপর্দ করা হতে পারে।