ধর্ষণের অভিযোগে গাংনীর ইটভাটা মালিক মফিজুল গ্রেফতার

0

 

গাংনী প্রতিনিধি: মেহেরপুর গাংনীর জুগিন্দা গ্রামের ইটভাটা ব্যবসায়ী মফিজুল ইসলামকে (৪৭) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। প্রতিবেশী গ্রামের এক যুবতীর দায়ের করা ধর্ষণ মামলার আসামি হিসেবে তাকে গ্রেফতার করেছে গাংনী থানা পুলিশ। গতকাল বুধবার দুপুরে বিষয়টি নিশ্চিত করেন গাংনী থানার ওসি।বিয়ের প্রলোভন ও ভয়ভীতি দেখিয়ে দীর্ঘদিন ধরে ওই যুবতীকে ধর্ষণ করে আসছে মফিজুল ইসলাম। এ অভিযোগে গত মঙ্গলবার দুপুরে ওই যুবতী বাদী হয়ে গাংনী থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করেন। তবে মফিজুল ইসলাম পরিস্থিতির শিকার বলে দাবি তার পরিবারের।ভুক্তভোগীসূত্রে জানা গেছে, ওই যুবতী গরিব পরিবারের মেয়ে। তার পিতা ইটভাটায় শ্রমিক হিসেবে কাজ করেন। সে সুবাদে ওই বাড়িতে যাওয়া আসা করতো মফিজুল। যাওয়া আসার এক পর্যায়ে শ্রমিকের যুবতী মেয়েকে নানা প্রলোভনে ফেলে মফিজুল। বিয়ের প্রলোভন ও ভয়ভীতি দেখিয়ে যুবতীকে ধর্ষণ করে আসছে মফিজুল ইসলাম। এমন অভিযোগ উল্লেখ করে মামলাটি দায়ের করেছেন ওই যুবতী।এ প্রসঙ্গে গাংনী থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওবাইদুর রহমান বলেন, অভিযুক্ত ধর্ষক মফিজুল ইসলামকে গ্রেফতার করে আদালতে পাঠানো হয়েছে। দ্রুত মামলাটির তদন্ত সম্পন্ন করে আদালতে চূড়ান্ত প্রতিবেদন (চার্জশিট) দাখিল করা হবে।

Loading Facebook Comments ...

প্রত্যুত্তর দিন

অনুগ্রহ করে আপনার মন্তব্য লিখুন!
অনুগ্রহ করে আপনার নাম লিখুন