চলে গেলেন চলচ্চিত্র পরিচালক জীবন রহমান

0

বিনোদন ডেস্ক: চলচ্চিত্র পরিচালক জীবন রহমান (৫৬) আর নেই। তিনি দীর্ঘদিন যাবত ডায়াবেটিস, কিডনি, লিভার ও ব্রেইন স্ট্রোকে আক্রান্ত হয়ে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় কিশোরগঞ্জের কটিয়াদী পৌরসভার কটিয়াদী পূর্বপাড়া মহল্লায় বোনের বাড়িতে ইন্তেকাল করেন। (ইন্নালিল্লাহি….রাজিউন)। শুক্রবার জুমা বাদ জানাযা শেষে পাকুন্দিয়া উপজেলার মঠখোলা গ্রামে পারিবারিক কবরস্থানে তাঁকে দাফন করা হয়। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী ও ১ মেয়ে রেখে গেছেন। ৯০ দশকের গোড়ার দিকে চলচ্চিত্র নির্মাণ জগতে তার পদযাত্রা। তার প্রথম চলচ্চিত্র ‘গহর বাদশা বানেছা পরী’। প্রথম ছবিই সুপারহিট হয়। এতে সাড়া পড়ে যায় চলচ্চিত্র জগতে। এরপর একে একে হুলিয়া, আজকের সন্ত্রাসী, প্রেম যুদ্ধ, আশার প্রদীপ, আলী কেন গোলাম, মহা সংগ্রাম এবং অ্যাকশন ছবি উত্তর দক্ষিণ এর মতো ব্যবসাসফল ছবি নির্মাণ করে চলচ্চিত্র জগতে এক খ্যাতিমান পরিচালক হিসাবে আত্মপ্রকাশ করেন জীবন রহমান। তার নির্মিত ১৫টি ছবিই ব্যবসা সফল হয়েছে। সুস্থ ধারার চলচ্চিত্র ‘মহা সংগ্রাম’ নির্মাণ করে ২০০৫ সালে তারুণ্য যুব কল্যাণ সংঘ জীবন রহমানকে শ্রেষ্ঠ পরিচালক হিসেবে ভাসানী স্মৃতি পুরস্কার প্রদান করে। ১৯৮২ সালে খসরু নোমানের সহকারী হিসেবে নাম লেখান চলচ্চিত্র জগতে। নির্মাণ করেন ‘সোহেল রানা’। এরপর দেলোয়ার জাহান ঝন্টু, কাজী হায়াৎ সহ বেশ কয়েকজন পরিচালকের সঙ্গে চলচ্চিত্র নির্মাণে কাজ করেন এবং পাশাপাশি অভিনয় করেন। ৯০ দশকের শুরুর দিকে তার পরিচালনায় ‘গহর বাদশা বানেছা পরী’ চলচ্চিত্র নির্মিত হয়। এটি তার পরিচালনায় প্রথম চলচ্চিত্র। প্রথম ছবিতেই তার অভাবনীয় সাফল্য সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যায় তাকে। ৯০ দশকের শেষ দিকে তিনি চলচ্চিত্র ‘মহা সংগ্রাম’ নির্মাণ করেন। এই ছবির জন্য তিনি ২০০৫ সালে ভাসানী স্মৃতি পুরস্কার লাভ করেন।

 

Loading Facebook Comments ...

প্রত্যুত্তর দিন

অনুগ্রহ করে আপনার মন্তব্য লিখুন!
অনুগ্রহ করে আপনার নাম লিখুন